রোহিঙ্গা ক্যাম্পে মিলল অস্ত্র কারখানা গ্রেপ্তার-৩

Desk Reporter
Desk Reporter
প্রকাশিত: ১১:০৮ পূর্বাহ্ণ, নভেম্বর ৮, ২০২১

নিউজ ডেস্ক:রোহিঙ্গা ক্যাম্পে মিলল অস্ত্র কারখানার সন্ধান গ্রেপ্তার ৩।কক্সবাজারের উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্পের পাশেই পাহাড়ে অস্ত্র তৈরীর কারখানার সন্ধান পেয়েছেন র‌্যাব। আর এ সময় ১০টি অস্ত্র ও বিপুল পরিমাণ অস্ত্র তৈরীর সরঞ্জামসহ ৩ রোহিঙ্গাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

 

 

৮ নভেম্বর সোমবার ভোরে কুতুপালং রোহিঙ্গা শিবিরের এক্স-৪ ক্যাম্পের পাশেই পাহাড়ে এ অভিযান চালানো হয়।

আটক কৃতরা হলেন- কুতুপালং ক্যাম্প সি-১ জি ব্লকের মৃত আজিজুর রহমানের ছেলে বাইতুল্লাহ-১৯-তার ভাই হাবিব উল্লাহ-৩২- ও একই ক্যাম্পের জি ব্লকের জাহিদ হোসেনের ছেলে মোহাম্মদ হাছুন -২৪-।

এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন র‌্যাব-১৫ এর উপ-অধিনায়ক মেজর মেহেদী হাসান। তিনি জানান, দীর্ঘদিন ধরে একটি চক্র এ কারখানায় অস্ত্র তৈরী করে আসছিল। আর এখান থেকে রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীদের কাছে অস্ত্র সরবরাহ করা হচ্ছে এমন গোপন  ভিত্তিতে ক্যাম্পে নজরদারি জোরদার  করা হয়। পরে কারখানাটির সন্ধান নিশ্চিত হওয়ার পর সোমবার ভোরে অভিযানে নামেন র‌্যাবের  একটি টিম।

 

এ  সময় র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে সন্ত্রাসীরা গুলি ছুড়তে থাকা। পরে র‌্যাবও  পাল্টা গুলি চালায়। দীর্ঘ সময় গোলাগুলির পর কারখানাটি ঘিরে ফেলে র‌্যাবের অভিযানিক  দল। এতে কারখানা থেকে ৩ রোহিঙ্গাকে গ্রেপ্তার  করা হয়। আরও অনেকে পালিয়ে যায়। এরপর অস্ত্রের এ কারখানা থেকে দেশীয় ১০টি অস্ত্র ও বিপুল পরিমাণ অস্ত্র তৈরীর সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়। সবকিছু মিলিয়ে সকাল ৮টার দিকে অভিযানটি শেষকরা  হয়।

র‌্যাবের এই কর্মকর্তা  আরও জানান, ক্যাম্পগুলোতে সন্ত্রাসীদের তৎপরতা ঠেকাতে কাজ করে যাচ্ছে র‌্যাবের সদস্যরা। গ্রপ্তার কৃতদের  পরবর্তী আইনি ব্যবস্থা শেষে উখিয়া থানায় হস্তান্তর করা হবে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।