শাওমি টেক্কা দিল স্মার্টওয়াচ অ্যাপলকেও

Desk Reporter
Desk Reporter
প্রকাশিত: ৫:২৩ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১২, ২০২১

বিজ্ঞান প্রযুক্তি: শাওমি টেক্কা দিল স্মার্টওয়াচ অ্যাপলকেও। অ্যাপল স্মার্টওয়াচ বাজারে আসার পরই এই টেক জায়ান্টকে টেক্কা দিতেই অনেক প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান বাজারে এনেছেন স্মার্টওয়াচ। তবে বাজারে সাড়া ফেলেছে সবচেয়ে বেশি শাওমির ব্যান্ড।

প্রযুক্তির বাজার গবেষণা প্রতিষ্ঠান ক্যানালিসের পরিসংখ্যান বলছেন, ২০২১-সালের দ্বিতীয় প্রান্তিকে সর্বাধিক বিক্রিত স্মার্টওয়াচ হলো একমাত্র শাওমির। অ্যাপলের বাজারের অবস্থান দখল করে নিয়েছেন শাওমির এমআই ব্যান্ড। এপ্রিল- জুন মাসে শাওমি-৮০ লক্ষ ইউনিট এম আই ব্যান্ড শিপমেন্ট করেছেন। যেখানে অ্যাপল শিপমেন্ট করেছেন মাত্র- ৭৯ লক্ষ ইউনিট। আর হুয়া্উয়ের স্মার্টওয়াচের শিপমেন্ট হয়েছে মাত্র-৩৭ লক্ষ ইউনিট।

এম আই এর ব্যান্ড সিক্স বাজারে এসেই যেন সবার নজর কেড়েছেন। অন্যান্য ব্যান্ডের চেয়ে এ ব্যান্ড বেশি সাড়া ফেলেছে । ২০২১-সালের দ্বিতীয় প্রান্তিকে বিশ্বভ্যাপী ব্যান্ড শিপমেন্ট হয়েছে-৪ কোটি ইউনিট। যেটা-২০২০ সালের চেয়ে সাড়ে-৫ শতাংশই বেশি।

স্মার্টওয়াচের বিক্রিতে বাজারের-১৯ দশমিক-৬শতাংশ দখলে আছে শাওমির,১৯ দশমিক-৩ শতাংশ দখলে রয়েছে অ্যাপলের।আর বাজারে চতুর্থ স্থানে আছে ফিটবিট আর সেক্ষেত্রে পঞ্চম স্থানে আছে স্যামসাং।

রিস্টওয়াচের বাজারে অ্যাপল দীর্ঘদিন ধরে সবচেয়ে শক্তিশালী অবস্থানে ছিল । কিন্তু শাওমির ‘এম আই স্মার্টব্যান্ড সিক্স’বাজারে ছাড়ার পরই বাজার চলে গেছে শাওমির দখলে। স্মার্টওয়াচ ও ঘড়ির শিপমেন্ট বেড়ে-২ হাজার-৫০০ কোটিতে পৌঁছেগেছে। যেখানে রিস্টওয়াচের বাজারের-৬২শতাংশই দখল করেছে ব্যান্ড।

সম্প্রতি এম আই স্মার্ট ব্যান্ড-৬ লঞ্চ হয়েছেন ভারতে। গেল বছর লঞ্চ হয়েছিলেন এম আই স্মার্ট ব্যান্ড-৫। নতুন স্মার্ট ব্যান্ডে রয়েছে একটি বড় সাইজের অ্যামোলেড টাচ ডিসপ্লে। আর আগের মডেলের তুলনায় এ স্ক্রিন সাইজও বড়। এম আই স্মার্ট ব্যান্ড- ৬- এ রয়েছে অনেক হেলথ মনিটরিং ফিচারও।

এই তালিকায় হার্ট রেট মনিটর-স্লিপ ট্র্যাকিং ফিচার। এম আই স্মার্ট ব্যান্ড-৬- এর দাম ভারতে- ৩৪৯৯ টাকা। অ্যামাজন ও এম আই স্টোর থেকেই কেনা যাবে এ স্মার্ট ব্যান্ড। শাওমি বলছেন, একবার চার্জ দিলেই এম আই স্মার্ট ব্যান্ড-৬- এ টানা-১৪ দিন পর্যন্ত ব্যাটারী লাইফ থাকবে।